- জাতীয়, ফিচার

নরসিংদীতে ছাত্রদলের নতুন কমিটিতে পদপ্রত্যাশীদের মধ্যে আলোচনার শীর্ষে যারা!

স্টাফ রিপোর্টার: নতুন কমিটির অপেক্ষায় ছাত্রদল নেতা-কর্মীরা। আর কমিটিতে স্থান পেতে চলছে নানামুখী লবিং-তদবির। গঠনতন্ত্র অনুযায়ী সংগঠনের মেয়াদ ২ বছর থাকলেও এরই মধ্যে পার হয়ে গেছে ৮ বছর। নেতৃত্বের পরিবর্তন না আসা এবং সম্প্রতি দলটির একাধিক সদস্য যুবদল ও সেচ্ছাসেবকদলের নতুন কমিটিতে পদায়ন হওয়ায় ছাত্রদলের কর্মকান্ডে ভাটা পড়েছে। এ অবস্থায় নরসিংদীতে ছাত্রদল নেতা-কর্মীরা বিএনপির আন্দোলন-সংগ্রামেও রাখতে পারছে না কার্যকর ভূমিকা। বাড়ছে কোন্দল, সমন্বয়হীনতা আর ব্যক্তিকেন্দ্রিকতা। ছাত্রদলের রাজনীতি নেতৃত্ব বিহীন হয়ে পড়েছে।

নতুন কমিটি নিয়ে নেতাকর্মীদের মধ্যে ব্যাপক উৎসাহ লক্ষ্য করা যাচ্ছে। আর ছাত্রদলের কমিটিকে কেন্দ্র করে নেতাকর্মীদের নজর এখন নতুন নেতৃত্বের দিকে। এমনটাই জানিয়েছেন দলের নিতিনির্ধারকরা। সভাপতি পদ প্রত্যাশীদের মধ্যে আলোচনায় রয়েছেন সাবেক এজিএস সিদ্দিকুর রহমান নাহিদ। রাজনিতিক কর্মসূচি বাস্তবায়ন করতে গিয়ে সাদা পোশাকধারী বাহিনী সদস্যদের হাতে সাড়ে ৮ মাস গুম থেকেছেন। শিকার হয়েছেন নানা নির্যাতনের।

তিনি বলেন, রাজনীতি করায় সাড়ে আট মাস গুম করে রেখেছে। নিতিনিধারকরা আমার ত্যাগ ও যোগ্যত্য সহ সব কিছু বিবেচনা করে মূলায়ন করবে এটাই আমার বিশ্বাস।

অন্যদিকে সাধারন সম্পদক পদ প্রত্যাশীদের মধ্যে আলোচনায় রয়েছেন কলেজ শাখা ছাত্র দলের আহবায়ক ফয়সাল মুন্না। নরসিংদী সরকারী কলেজে ২০০৯-১০ ছাত্র-সংসদ নির্বাচনে দলীয় প্যানেলে জিএস পদে নির্বাচন করেন। সরকার দলীয় ছাত্রলীগের প্রভাবে প্যানেলের অন্যরা নির্বাচন ছেড়ে পালিয়ে গেলেও তিনি একা মাঠে ছিলেন। এরপরই নির্বাচিত হন কলেজ শাখা ছাত্রদলের আহ্বায়ক। রাজনৈতিক কারনে বহুবার হামলা-মামলাসহ প্রতিহিংসার শিকার হয়েছেন। তবু পিছু পা হননি। দলের দু:সময়ে জেলা বিএনপির সভাপতি খায়রুল কবির খোকনের নেতৃত্বে রাজপথে ছিলেন উদিয়মান ছাত্রনেতা ফয়সাল মুন্না।

তিনি বলেন, আমি শহীদ জিয়ার আদর্শের সৈনিক। শহীদ জিয়ার হাতে গড়া সংগঠন হচ্ছে ছাত্রদল। ছাত্রদলের নতুন নেতৃত্ব তৈরী হয় কলেজ ক্যাম্পাস থেকে। কলেজ শাখা রাজনীতিতে নতুন নেতৃত্ব তৈরী করতেই আমি জেলা ছাত্রদলের দায়িত্ব কাঁধে নিতে চাই। বিগত সময়ে স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনে রাজপথের আতংক ছিলো নরসিংদী জেলা ছাত্রদল। দলের দু:সময়ে জেলা বিএনপির সভাপতি খায়রুল কবির খোকন ভাইয়ের পাশে থেকে রাজপথে আন্দোলন সংগ্রাম করেছি। হামলা-মামলার শিকারও হয়েছি অনেক। সবসময় দলের সিনিয়র নেতৃবৃন্দের সাথে আন্দোলন সংগ্রামে যারা ভূমিকা রেখেছে,তাদেরকে যাচাই-বাছাই করে নতুন নেতৃত্ব আনা হবে বলে আমার বিশ্বাস।

নরসিংদী জেলা ছাত্রদলের সভাপতি পদে পদপ্রত্যাশীদের মধ্যে আরো রয়েছেন বর্তমান কমিটির সাধারন সম্পাদক আব্দুর রউফ ফকির রনি। সাধারন সম্পাদক পদে পদপ্রত্যাশীদের মধ্যে আরো রয়েছেন মাঈনুদ্দীন ভূইয়া।

এখানে কমেন্ট করুন: